Templates by BIGtheme NET
Home / অর্থনীতি / সোনার দাম যেন রোলার কোস্টার!

সোনার দাম যেন রোলার কোস্টার!

বিশ্ববাজারে সারা বছরই ওঠা-নামা করেছে সোনার দাম। দামের এই ওঠা-নামাকে তুলনা করা যায় রোলার কোস্টারের সঙ্গে। তবে বছর শেষে নিম্নমুখী ধারাতেই থেকেছে সোনার দাম। অবশ্য এই সুবাতাস বাংলাদেশের মানুষের কাছে পৌঁছায়নি। কারণ আন্তর্জাতিক বাজারে সোনার দাম যে হারে কমেছে দেশে সেই হারে কমাননি ব্যবসায়ীরা। তাঁদের যুক্তি, আন্তর্জাতিক দামে তাঁরা কিনতে পারেন না।
বছরের শুরুতে ভালো মানের ২২ ক্যারেট সোনার দাম ছিল প্রতি ভরি (১১.৬৬৪ গ্রাম) ৪৪ হাজার ৫২১ টাকা। বছরের শেষে এসে হয়েছে ৪১ হাজার ২৯০ টাকা। তার মানে কমেছে ৩ হাজার ২৩১ টাকা। যদিও বছরের শুরুতে ২০১৫ সালের ১ জানুয়ারিতে প্রতি আউন্স (৩১.১০৩৪৭৬৮ গ্রাম) সোনার দাম ছিল ১ হাজার ১৮৪ ডলার। জানুয়ারির শেষ নাগাদ তা বেড়ে দাঁড়ায় ১ হাজার ৩০২ ডলারে। মার্চের দিকে দাম কমে এলেও এপ্রিল থেকে জুলাই পর্যন্ত কখনো বেড়েছে, আবার কখনো কমেছে মূল্যবান এই ধাতুটির দাম। আগস্টে প্রতি আউন্স সোনার দাম কমে ১ হাজার ৮০ ডলার প্রতি আউন্সে চলে আসে। বছরের শেষে ডিসেম্বরে এসে তা আরও কমে ১ হাজার ৭০ ডলারে নেমে আসে।
হিসাবে দেখা যায়, প্রতি ভরিতে দামের ওঠা-নামার কারণে বিশ্লেষকেরা ২০১৬ সালের সোনার দাম কেমন হবে তা নিয়ে নিশ্চিত করে কিছু বলতে পারছেন না।

About admin

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful