Templates by BIGtheme NET
Home / জাতীয় / সাভার কুমিল্লা জামালপুরে হামলা, গুলি

সাভার কুমিল্লা জামালপুরে হামলা, গুলি

পৌরসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন স্থানে সংঘর্ষ, হামলা ও আচরণবিধি লঙ্ঘনের ঘটনা বাড়ছে। গতকাল সোমবার সাভার পৌরসভায় বিএনপির প্রার্থী বদিউজ্জামানের ব্যাংক কলোনির বাসায় সংবাদ সম্মেলন চলাকালে হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে ১০ জন আহত হন। কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে আওয়ামী লীগ ও এর বিদ্রোহী প্রার্থী এবং জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে বিএনপি ও এর বিদ্রোহী মেয়র পদপ্রার্থীর মধ্যে বড় ধরনের সংঘর্ষ হয়েছে। ঘটেছে গুলিবিনিময়ের ঘটনাও।
নাটোর সদর ও গোপালপুর পৌরসভা, যশোর সদর, চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ ও ভোলার দৌলতখানে সংঘর্ষ, নির্বাচনী প্রচারে বাধা ও হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
বরগুনা সদর ও বেতাগী পৌরসভায় স্থানীয় সাংসদ ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু ও শওকত হাচানুর রহমান এবং রংপুরের বদরগঞ্জের সাংসদ আবুল কালাম মো. আহসানুল হক চৌধুরীর বিরুদ্ধে আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ উঠেছে। সাংসদ হাচানুর রহমানকে দ্বিতীয়বারের মতো কারণ দর্শানোর চিঠি দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।
নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গের দায়ে ১৪টি পৌরসভার ২১ জন মেয়র পদপ্রার্থী এবং ৪১ জন কাউন্সিলর পদপ্রার্থীকে ৩ লাখ ৩৭ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
সাভার: বিএনপির মেয়র পদপ্রার্থী বদিউজ্জামান সাভার পৌর এলাকায় ব্যাংক কলোনির নিজ বাসায় গতকাল বিকেলে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। বিকেল সাড়ে চারটার দিকে সংবাদ সম্মেলন চলাকালে সরকারি দলের শতাধিক নেতা-কর্মী চারদিক থেকে তাঁর বাসায় অতর্কিত হামলা চালান। হামলাকারীরা ইটপাটকেল ছুড়তে ছুড়তে তাঁর বাসার ভেতর ঢুকে ভাঙচুর করেন। এ সময় গুলির শব্দও শোনা যায়। এ হামলার ঘটনায় ১০ জন আহত হন।
চৌদ্দগ্রাম: আওয়ামী লীগের মেয়র পদপ্রার্থী মো. মিজানুর রহমান এবং বিদ্রোহী মেয়র পদপ্রার্থী ইমাম হোসেন পাটোয়ারীর অনুসারীদের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষে দুজন গুলিবিদ্ধ ও অন্তত ২০ জন আহত হন। এ সময় সাতটি মোটরসাইকেল ও একটি মাইক্রোবাসে আগুন দেওয়া হয়। আগুন, ভাঙচুর ও লুটপাটের শিকার হয়েছে ২০টি ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান। এতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে আড়াই ঘণ্টা যান চলাচল বন্ধ ছিল।
একই পৌরসভায় বিএনপির মেয়র প্রার্থী গোলাম মুহাম্মদ রাব্বানীর মাইক্রোবাসে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করা হয়। এ ছাড়া চান্দিনা বাজারে উপজেলা বিএনপি কার্যালয়ের পাশে ককটেল বিস্ফোরিত হয়।
সরিষাবাড়ী: ভোটারদের মধ্যে টাকা বিতরণকে কেন্দ্র করে জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে দুপুরে বিএনপির মেয়র প্রার্থী ফয়জুল কবির তালুকদার ও বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী রুহুল আমিনের সমর্থকদের সংঘর্ষে দুজন গুলিবিদ্ধ ও ২০ জন আহত হন। তবে সরিষাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. বিল্লাল উদ্দিন গুলি হওয়ার কথা স্বীকার করেননি।
আরও সংঘর্ষ, প্রচারে বাধা: নাটোর পৌরসভায় বিএনপির মেয়র প্রার্থী শেখ এমদাদুল হক আল মামুন সংবাদ সম্মেলন করে অভিযোগ করেছেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী প্রতিদিন তাঁর প্রচারণায় বাধা দিচ্ছেন। যশোরে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী এস এম কামরুজ্জামানের নির্বাচনী কার্যালয়ে হামলার অভিযোগ উঠেছে আওয়ামী লীগের প্রার্থী জহিরুল ইসলাম চাকলাদারের বিরুদ্ধে। চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ পৌরসভায় বিএনপির প্রার্থী আবদুল মান্নান খান নিজ দলের কর্মীদের হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন।
নাটোরের গোপালপুর পৌরসভায় আওয়ামী লীগের প্রার্থীর কর্মীকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানা করার ঘটনাকে কেন্দ্র করে পৌর আওয়ামী লীগ ও উপজেলা আওয়ামী লীগের কর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এতে পাঁচজন আহত হন। ভোলার দৌলতখানে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর সমর্থকেরা উপজেলার এক বিএনপি নেতার মাথা ফাটিয়ে দিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।
ধুনট ও বাজিতপুরে বহিষ্কার: বিদ্রোহী প্রার্থী দমনে এবার তাঁদের পরিবারের সদস্যদেরও দল থেকে বহিষ্কার শুরু করেছে আওয়ামী লীগ। বগুড়ার ধুনটে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী এ জি এম বাদশাহসহ ১০ জন আওয়ামী লীগ নেতাকে গতকাল বহিষ্কার করা হয়। তাঁদের মধ্যে রয়েছেন বিদ্রোহী প্রার্থীর ভাই ও পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ এফ এম ফজলুল হক।
কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর পৌরসভায় বিদ্রোহী হিসেবে নির্বাচন করায় একই পরিবারের তিনজনকে বহিষ্কার করা হয়েছে। তাঁরা হলেন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী শওকত আকবর, তাঁর বাবা উপজেলা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ যুগ্ম আহ্বায়ক মেজবাহ উদ্দিন ও বড় ভাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ছরওয়ার আলম।
সাংসদদের আচরণবিধি লঙ্ঘন চলছে: দলীয় প্রার্থীর পক্ষে সভা করার অভিযোগে বরগুনা-২ আসনের সাংসদ (পাথরঘাটা-বামনা-বেতাগী) শওকত হাচানুর রহমানকে গত রোববার বিকেলে দ্বিতীয় দফায় কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। এর আগেও আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে তাঁকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়।
বরগুনা সদরে বিজয় সমাবেশে আওয়ামী লীগের পক্ষে ভোট চেয়েছেন স্থানীয় সাংসদ ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু। রংপুরের বদরগঞ্জের সাংসদ আবুল কালাম মো. আহসানুল হক চৌধুরী গত রোববার রাতে বদরগঞ্জে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী উত্তম কুমার সাহার পক্ষে মাইকে ভোট চান।
জরিমানা: কিশোরগঞ্জ সদর, হোসেনপুর ও করিমগঞ্জ পৌরসভায় গতকাল সাত মেয়র ও ১৬ কাউন্সিলর প্রার্থীকে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে ১ লাখ ৪৬ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। বগুড়ার নন্দীগ্রামে ১৪ জন মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীকে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে ১৪ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার ছেংগারচর পৌরসভায় রঙিন পোস্টার, বিলবোর্ড ও ব্যানার লাগানোর দায়ে সাতজন কাউন্সিলর প্রার্থীকে মোট ২৩ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়।
বরগুনার পাথরঘাটা পৌরসভায় আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থীকে ৫ হাজার টাকা, টাঙ্গাইলের সখীপুর পৌরসভায় দুই কাউন্সিলর প্রার্থীকে ১৪ হাজার টাকা, মানিকগঞ্জের এক মেয়র ও এক কাউন্সিলর প্রার্থীকে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে ১ হাজার টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
নেত্রকোনার কেন্দুয়া পৌরসভায় উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতা মাহমুদ হাসান চৌধুরীর নেতৃত্বে মোটরসাইকেল মহড়া বের হলে তাঁকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। সাতক্ষীরায় ভোটারদের জন্য বনভোজনের আয়োজন করার অভিযোগে কাউন্সিলর প্রার্থী ওসমান গণিকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
সিরাজগঞ্জের কাজীপুরে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থীসহ দুই মেয়র ও ৭ কাউন্সিলর প্রার্থী এবং উল্লাপাড়ায় এক কাউন্সিলর প্রার্থীকে মোট ২৮ হাজার টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। নাটোরের গোপালপুরে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী রোকসানা মোর্ত্তজার কর্মী জাহারুল ইসলামের নেতৃত্বে কয়েকজন যুবক বিএনপির প্রার্থী নজরুল ইসলামের কর্মীকে মারধর করলে তাঁকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। মৌলভীবাজারের কুলাউড়া পৌরসভায় চারজন কাউন্সিলর প্রার্থীকে ২১ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

About admin

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful