Templates by BIGtheme NET
Home / জাতীয় / ময়মনসিংহের এসপিকে ট্রাইব্যুনালে তলব
ICT-medium20170131144016

ময়মনসিংহের এসপিকে ট্রাইব্যুনালে তলব

নিজস্ব প্রতিবেদক : মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় ময়মনসিংহের মৃত ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক ঘোষণা করে ট্রাইব্যুনালে প্রতিবেদন দেওয়ায় এ ঘটনার ব্যাখ্যা দিতে ময়মনসিংহের পুলিশ সুপারকে তলব করেছেন ট্রাইব্যুনাল।
আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারি তাকে স্বশরীরে ট্রাইব্যুনালে হাজির হতে বলা হয়েছে। একই সঙ্গে মৃত ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক ঘোষণা করে ট্রাইব্যুনালে প্রতিবেদন দেওয়ার ঘটনার ব্যাখ্যা দিতে পুলিশের আইজিপিকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের বিচারপতি শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বাধীন ২ বিচারপতির বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

এর আগে গত ১১ জানুয়ারি মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় ময়মনসিংহের মৃত ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক ঘোষণা করে ট্রাইব্যুনালে প্রতিবেদন দেওয়ায় সংশ্লিষ্টদের প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করেন ট্রাইব্যুনাল। বিষয়টি খতিয়ে দেখতে প্রসিকিউশনকে মৌখিক নির্দেশনা দেওয়া হয়।

এ সময় আদালতে চিফ প্রসিকিউটর গোলাম আরিফ টিপু, প্রসিকিটর হায়দার আলী ও ঋষিকেষ সাহা উপস্থিত ছিলেন।

পরে প্রসিকিউটর হায়দার আলী সাংবাদিকদের বলেন, ‘ট্রাইব্যুনাল বলেছেন, মৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা চলতে পারে না। এটা আইন বিরুদ্ধ কাজ।’

তিনি বলেন, ‘আদালত আমাদের মৌখিকভাবে এ বিষয়ে যাদের গাফিলতি আছে তা খতিয়ে দেখতে নির্দেশ দিয়েছেন।’

গত ১০ জানুয়ারি একটি বেসরকারি টেলিভিশনে  ‘মৃত ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক ঘোষণা করে ট্রাইব্যুনালে বিচার চলছে’ শিরোনামে একটি  প্রতিবেদন প্রতিবেদনটি ট্রাইব্যুনালের নজরে আসে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ট্রাইব্যুনালে ওয়াজ উদ্দিনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের ৭ মাস আগেই মারা গেছেন তিনি।

একাত্তরের হত্যা, গণহত্যা মামলার আসামি ওয়াজ উদ্দিন। তার বিরুদ্ধে ২০১৪ সালের অক্টোবরে তদন্ত শুরু করে তদন্ত সংস্থা। শুরু থেকেই পলাতক দেখিয়ে তাকে ধরতে অভিযান অব্যাহত আছে বলেও পুলিশের রিপোর্টে বলা হয়।

২০১৬ সালের ১১ ডিসেম্বর ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক ঘোষণা করে তারপক্ষে রাষ্ট্রীয় খরচে আইনজীবী নিয়োগ দিয়ে বিচার শুরুর আদেশ দেন ট্রাইব্যুনাল।

কিন্তু ইউনিয়ন পরিষদ থেকে দেওয়া মৃত্যু সনদে দেখা যায়, প্রায় ৮ মাস আগে ২০১৬ সালের ৭ মে ওয়াজ উদ্দিন মারা গেছেন। তার মৃত্যুর ৯ দিন পর তাকে আদালতে হাজিরে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তির আদেশ আসে ট্রাইব্যুনাল থেকে। পরে তাকে হাজির করতে দুইটি জাতীয় দৈনিকে বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়।

এই মামলার অপর আসামি রিয়াজ উদ্দিন ফকির   কারাগারে  আছেন।

 

About Tareq Hossain

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful