Templates by BIGtheme NET
Home / খেলাধুলা / আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল সমান সমান

আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল সমান সমান

আর্জেন্টিনার সঙ্গে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে ড্র করেছে ব্রাজিল। ১-১ গোলের এই ফলে জয়ের জন্য অপেক্ষা আরো বাড়লো জেরার্দো মার্তিনোর দলের।

বুয়েনস আইরেসের মনুমেন্তাল স্টেডিয়ামে শনিবার বাংলাদেশ সময় সকাল ছয়টায় শুরু হওয়া এই ম্যাচে প্রথমার্ধের আধ ঘণ্টা নিয়ন্ত্রণ করার পর আর্জেন্টিনাকে এগিয়ে দেন এসেকিয়েল লাভেস্সি। দ্বিতীয়ার্ধে ম্যাচে ফেরা ব্রাজিলকে সমতায় ফেরান লুকাস লিমা।

ম্যাচের প্রথম থেকেই ব্রাজিলের উপর চেপে বসে স্বাগতিকরা, তবে গোলের কোনো সুযোগ তৈরি হয়নি প্রথম আধ ঘণ্টায়। ডি-বক্সের ভেতর ক্রসে ঠিক মতো ভলি নিতে পারেননি পিএসজির আনহেল ডি মারিয়া।

এভার বানেগার দূরপাল্লার শট যায় ক্রসবার উঁচিয়ে। ব্রাজিল পাল্টা আক্রমণের সুযোগ পেলেই কেবল উপরে উঠে আসতে পারে। আক্রমণভাগের দুই তারকা লিওনেল মেসি, সের্হিও আগুয়েরোর জায়গায় খেলা গনসালো হিগুয়াইন আর লাভেস্সি আর সঙ্গে আনহেল ডি মারিয়া বার বার ব্রাজিলের রক্ষণের পরীক্ষা নেন। আধা ঘন্টা পর আর্জেন্টিনাকে এগিয়ে দেয়া গোলে ছোঁয়া ছিল এই তিন জনেরই।

ডি মারিয়া বল বাড়িয়েছিলেন ডান দিকে হিগুয়াইনকে। ডিফেন্ডারদের অবস্থান দেখে নিয়ে নাপোলির এই ফরোয়ার্ড দারুণ ক্রসে বাড়ান ডি-বক্সে, দৌড়ে গিয়ে লক্ষ্যভেদ করেন লাভেস্সি। দেশের হয়ে পিএজির এই ফরোয়ার্ডের এটি সপ্তম গোল।

৩৯তম মিনিটে মার্কোস রোহোর ক্রস থেকে এভারটন ডিফেন্ডার ফুনেস মোরির হেড ব্রাজিলের পোস্টের একটু বাইরে দিয়ে যায়।

প্রথমার্ধে দেখা যায়নি নেইমার জাদুও। চার ম্যাচ নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে মাঠে নামা বার্সেলোনার এই তারকা ফরোয়ার্ড একটু নিচে নেমে খেলে সতীর্থদের বল যোগান দেওয়ার চেষ্টা করে যান।

বিরতির পর খেলা শুরু হলে ব্যবধান দ্বিগুণ করার দারুণ একটি সুযোগ হারায় আর্জেন্টিনা। ওতামেন্দির পাস থেকে এভার বানেগার প্রথম শট ঠেকিয়ে দেন মিরান্দা, পরের শট গোলরক্ষক আলিসনকে ফাঁকি দিলেও বল পোস্টে লেগে ফিরে আসে।

৫৯তম মিনিটে অনুজ্জ্বল রিকার্দো অলিভেইরার বদলে বায়ার্ন মিউনিখের মিডফিল্ডার দগলাস কস্তাকে মাঠে নামান কোচ দুঙ্গা। তিন মিনিট পরই ব্রাজিলকে সমতায় ফেরাতে অবদান রাখেন তিনি।

আলভেসের ক্রস থেকে কস্তার হেড ক্রসবারে লাগলেও ফিরতি বলে দরুণ ভলিতে গোল করেন লুকাস লিমা। জাতীয় দলের হয়ে সান্তোসের মিডফিল্ডারের এটাই প্রথম গোল। ডাগ আউটে কোচ দুঙ্গার মুখেও প্রথমবারের মতো হাসি দেখা গেল।

গোলের পর ঘুলে দাড়ায় ব্রাজিল। আর্জেন্টিনার আক্রমণের জবাবে উঠে আসে নেইমাররাও।

ম্যাচের নির্ধারিত সময়ের এক মিনিট আগে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়তে হয়ে ব্রাজিলের ডিফেন্ডার দাভিদ লুইসের। তবে যোগ করা সময়ে কোনো বিপদে পড়তে হয়নি অতিথিদের।

রাশিয়া ২০১৮ বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে এখনও জয়ের মুখ দেখা হলো না আর্জেন্টিনার। ঘরের মাঠে ইকুয়েডরের কাছে ২-০ গোলে হেরে বিশ্বকাপ বাছাই অভিযান শুরু করা মার্তিনোর দল পরের ম্যাচে প্যারাগুয়ের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করে।

আর চিলির কাছে প্রথম ম্যাচে ২-০ গোলে হারলেও পরের ম্যাচে ভেনেজুয়েলাকে ৩-১ গোলে হারায় ব্রাজিল। প্রবল প্রতিপক্ষের মাঠে পিছিয়ে পড়েও এক পয়েন্ট নিয়ে ফিরতে পারায় সন্তুষ্টই মনে হয়েছে দুঙ্গাকে।

About admin

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful